০৫:১৬ অপরাহ্ন, সোমবার, ২২ জুলাই ২০২৪, ৭ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

আশ্রয়কেন্দ্রে শিশুর জন্ম , নাম রাখলেন বিয়ানীবাজারের ইউএনও কাজী শামিম

  • এম এ ওমর
  • প্রকাশিত হয়েছেঃ ০২:১৩:৫৭ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ৬ জুলাই ২০২৪
  • ৩৫২ পড়া হয়েছেঃ
print news -

আশ্রয়কেন্দ্রে শিশুর জন্ম , নাম রাখলেন বিয়ানীবাজারের ইউএনও কাজী শামিম

আশ্রয়কেন্দ্রে শিশুর জন্ম  : ভারী বর্ষণ আর উজানের পানিতে ডুবেছে সিলেটের বিয়ানীবাজার উপজেলার বসতবাড়ি। এ অবস্থায় বন্যাদুর্গত মানুষ বিভিন্ন আশ্রয়কেন্দ্রে ঠাঁই নিয়েছেন। উপজেলার মুড়িয়া ইউনিয়নের বড়উদা সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় আশ্রয়কেন্দ্রে ওঠেন প্রসূতি আফসানা বেগম ও কনু আহমদ সহ পরিবারের অন্য সদস্যরা সেখানেই কোল জুড়ে আসে ফুটফুটে কন্যা সন্তান। নবজাতকের নাম রাখা হয়েছে আসফিয়া জান্নাত বন্যা। আশ্রয়কেন্দ্রে শিশুর জন্ম

আশ্রয়কেন্দ্রে শিশুর জন্ম আফসানার স্বামী কনু আহমদ বলেন, কয়েকদিন থেকে আশ্রয় কেন্দ্রে আছি। স্ত্রী প্রসবব্যথা অনুভব করলে বিয়ানীবাজার উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যেতে বলেন সেখানকার দায়িত্বরত এক চিকিৎসক। তবে বন্যার পানিতে সড়ক তলিয়ে যাওয়ায় হাসপাতালে যাওয়া সম্ভব ছিল না। এছাড়া গভীর রাত হওয়ায় বিভিন্ন স্থানে যোগাযোগ করেও কোনও গাড়ির ব্যবস্থা করতে পারিনি এবং আশ্রয়কেন্দ্রে সন্তান জন্ম দেয়।

খবর পেয়ে বিয়ানীবাজার উপজেলা নির্বাহী অফিসার কাজী শামীম, শিশুটিকে দেখতে যান, এসময় তিনি শিশুর জন্য, স্বাস্থ্য সামগ্রী, শিশুর মায়ের ফলফ্রুট সহ বিভিন্ন প্রয়োজনীয় খাবার নিয়ে যান। নবজাতক ও প্রসূতির স্বাস্থ্য পরীক্ষা করা হয়েছে। তারা উভয়ই সুস্থ আছেন। প্রয়োজনীয় চিকিৎসাও দেওয়া হচ্ছে। মা ও শিশু সুস্থ রয়েছে। পরিবারটিকে প্রয়োজনীয় সব ধরনের সহযোগিতা দেওয়া হবে বলেও তিনি জানান।

বিয়ানীবাজার মডেল মসজিদের জায়গা পরিদর্শন করলেন এমপি নাহিদ

আশ্রয়কেন্দ্রে শিশুর জন্ম হওয়ায় শিশুটির বাবা কুনু আহমদ উপজেলা নির্বাহী অফিসারের এমন মহৎ কাজে আবেগআপ্লুত হন। উপস্থিত মুড়িয়া ইউপি চেয়ারম্যান ফরিদ আল মামুন ও শিশুটির মা বাবার অনুরুধে উপজেলা নির্বাহী অফিসার কাজী শামীম শিশুটি নাম রাখেন, আসফিয়া আক্তার বন্যা।

আশ্রয়কেন্দ্রে শিশুর জন্মমুড়িয়া ইউপি চেয়ারম্যান ফরিদ আল মামুন বলেন, আশ্রয় কেন্দ্রে মেয়ে শিশুটির জন্মের খবরে আশ্রয় নেওয়া লোকজনের মধ্যে আনন্দ-উচ্ছ্বাস দেখা দেয়। সবাই শিশুটিকে একনজর দেখার জন্য ভিড় করে। দুর্দিন-দুঃসময়ে শিশুটির জন্ম নিয়েছে। পৃথিবী থেমে থাকে না। বন্যার ভয়াবহ সময়ে শিশুটির জন্ম বলে দিচ্ছে- সংগ্রাম করে বেঁচে থাকার নামই জীবন।

কোটা সংস্কার এর দাবিতে আন্দলনরত শিক্ষার্থীদের নিরাপত্তা নিয়ে চিন্তিত প্রধানমন্ত্রী: পলক

আশ্রয়কেন্দ্রে শিশুর জন্ম , নাম রাখলেন বিয়ানীবাজারের ইউএনও কাজী শামিম

প্রকাশিত হয়েছেঃ ০২:১৩:৫৭ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ৬ জুলাই ২০২৪
print news -

আশ্রয়কেন্দ্রে শিশুর জন্ম , নাম রাখলেন বিয়ানীবাজারের ইউএনও কাজী শামিম

আশ্রয়কেন্দ্রে শিশুর জন্ম  : ভারী বর্ষণ আর উজানের পানিতে ডুবেছে সিলেটের বিয়ানীবাজার উপজেলার বসতবাড়ি। এ অবস্থায় বন্যাদুর্গত মানুষ বিভিন্ন আশ্রয়কেন্দ্রে ঠাঁই নিয়েছেন। উপজেলার মুড়িয়া ইউনিয়নের বড়উদা সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় আশ্রয়কেন্দ্রে ওঠেন প্রসূতি আফসানা বেগম ও কনু আহমদ সহ পরিবারের অন্য সদস্যরা সেখানেই কোল জুড়ে আসে ফুটফুটে কন্যা সন্তান। নবজাতকের নাম রাখা হয়েছে আসফিয়া জান্নাত বন্যা। আশ্রয়কেন্দ্রে শিশুর জন্ম

আশ্রয়কেন্দ্রে শিশুর জন্ম আফসানার স্বামী কনু আহমদ বলেন, কয়েকদিন থেকে আশ্রয় কেন্দ্রে আছি। স্ত্রী প্রসবব্যথা অনুভব করলে বিয়ানীবাজার উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যেতে বলেন সেখানকার দায়িত্বরত এক চিকিৎসক। তবে বন্যার পানিতে সড়ক তলিয়ে যাওয়ায় হাসপাতালে যাওয়া সম্ভব ছিল না। এছাড়া গভীর রাত হওয়ায় বিভিন্ন স্থানে যোগাযোগ করেও কোনও গাড়ির ব্যবস্থা করতে পারিনি এবং আশ্রয়কেন্দ্রে সন্তান জন্ম দেয়।

খবর পেয়ে বিয়ানীবাজার উপজেলা নির্বাহী অফিসার কাজী শামীম, শিশুটিকে দেখতে যান, এসময় তিনি শিশুর জন্য, স্বাস্থ্য সামগ্রী, শিশুর মায়ের ফলফ্রুট সহ বিভিন্ন প্রয়োজনীয় খাবার নিয়ে যান। নবজাতক ও প্রসূতির স্বাস্থ্য পরীক্ষা করা হয়েছে। তারা উভয়ই সুস্থ আছেন। প্রয়োজনীয় চিকিৎসাও দেওয়া হচ্ছে। মা ও শিশু সুস্থ রয়েছে। পরিবারটিকে প্রয়োজনীয় সব ধরনের সহযোগিতা দেওয়া হবে বলেও তিনি জানান।

বিয়ানীবাজার মডেল মসজিদের জায়গা পরিদর্শন করলেন এমপি নাহিদ

আশ্রয়কেন্দ্রে শিশুর জন্ম হওয়ায় শিশুটির বাবা কুনু আহমদ উপজেলা নির্বাহী অফিসারের এমন মহৎ কাজে আবেগআপ্লুত হন। উপস্থিত মুড়িয়া ইউপি চেয়ারম্যান ফরিদ আল মামুন ও শিশুটির মা বাবার অনুরুধে উপজেলা নির্বাহী অফিসার কাজী শামীম শিশুটি নাম রাখেন, আসফিয়া আক্তার বন্যা।

আশ্রয়কেন্দ্রে শিশুর জন্মমুড়িয়া ইউপি চেয়ারম্যান ফরিদ আল মামুন বলেন, আশ্রয় কেন্দ্রে মেয়ে শিশুটির জন্মের খবরে আশ্রয় নেওয়া লোকজনের মধ্যে আনন্দ-উচ্ছ্বাস দেখা দেয়। সবাই শিশুটিকে একনজর দেখার জন্য ভিড় করে। দুর্দিন-দুঃসময়ে শিশুটির জন্ম নিয়েছে। পৃথিবী থেমে থাকে না। বন্যার ভয়াবহ সময়ে শিশুটির জন্ম বলে দিচ্ছে- সংগ্রাম করে বেঁচে থাকার নামই জীবন।