১২:১৪ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১১ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

সড়ক দুর্ঘটনা য় দিনে ২ শিশুর বেশি মৃ ত্যু

print news -
নিউজ ডেস্ক: সড়ক দুর্ঘটনা য় দিনে ২ শিশুর বেশি মৃ ত্যু হয়েছে বলে যানা গেছে।  গত নভেম্বর মাসে দেশে ৫৪১টি সড়ক দুর্ঘটনায় ৪৬৭ জন নিহত হয়েছেন। এসব দুর্ঘটনায় আরো ৬৭২ জন আহত হয়েছেন। নিহতের মধ্যে ৫৩ জন নারী ও ৬৬ শিশু রয়েছে। দেশের বিভিন্ন স্কুল-মাদরাসা-কলেজের ৬৬ জন শিক্ষার্থী নিহত হয়েছে।
সবচেয়ে বেশি ২০৭টি মোটরসাইকেল দুর্ঘটনায় ১৮১ জন নিহত হয়েছে। যা মোট নিহতের ৩৮.৭৫ শতাংশ। মোটরসাইকেল দুর্ঘটনার হার ৩৮.২৬ শতাংশ। দুর্ঘটনায় ১০৬ জন পথচারী নিহত হয়েছে।
যা মোট নিহতের ২২.৬৯ শতাংশ। যানবাহনের চালক ও সহকারী নিহত হয়েছেন ৬৮ জন, অর্থাৎ ১৪.৫৬ শতাংশ।আজ শনিবার রোড সেফটি ফাউন্ডেশনের প্রকাশিত মাসিক দুর্ঘটনা সংক্রান্ত প্রতিবেদনে এসব তথ্য জানা গেছে। বিভিন্ন সংবাদমাধ্যমে প্রচারিত খবরের তথ্যের ভিত্তিতে প্রতিবেদনটি তৈরি করা হয়েছে।
এই সময়ে ৫টি নৌ-দুর্ঘটনায় ৫ জন নিহত, ৩ জন আহত হয়েছেন। ২২টি রেলপথ দুর্ঘটনায় ১৯ জন নিহত এবং ১৬ জন আহত হয়েছে।দুর্ঘটনায় যানবাহনভিত্তিক নিহতের পরিসংখ্যানে দেখা যায়, মোটরসাইকেল চালক ও আরোহী ১৮১ জন, বাস যাত্রী ৮ জন, ট্রাক-কাভার্ড ভ্যান-পিকআপ ভ্যান-পুলিশভ্যান আরোহী ২০ জন ও তিন চাকার যানে ১০৬ জন। মোট দুর্ঘটনার মধ্যে ১৮৭টি জাতীয় মহাসড়কে, ২৩২টি আঞ্চলিক সড়কে, ৮১টি গ্রামীণ সড়কে, ৩৩টি শহরের সড়কে সংঘটিত হয়েছে।ঢাকা বিভাগে সবচেয়ে বেশি দুর্ঘটনা ও প্রাণহানি ঘটেছে।

আরো পড়ুন:২৪ বছর বয়সে মালয়ালম অভিনেত্রীর মৃ ত্যু

১৩৮টি দুর্ঘটনায় ১১৯ জন নিহত। সিলেট বিভাগে সবচেয়ে কম ২১টি দুর্ঘটনায় ১৬ জনের প্রাণহানি ঘটেছে। একক জেলা হিসেবে চট্টগ্রাম জেলায় সবচেয়ে বেশি ৩৮টি দুর্ঘটনায় ৪৯ জন নিহত হয়েছে। সবচেয়ে কম দুর্ঘটনা ঘটেছে খাগড়াছড়ি জেলায়। দুটি দুর্ঘটনা ঘটলেও কোনো প্রাণহানি ঘটেনি। রাজধানী ঢাকায় ২৬টি দুর্ঘটনায় ২০ জন নিহত এবং ৩১ জন আহত হয়েছে।

আরো পড়ুন: বিএসএফের গুলিতে নি হ ত যুবকের লা শ ফেরত পেল পরিবার

গত অক্টোবর মাসে ৪৫৮টি সড়ক দুর্ঘটনায় ৪২১ জন নিহত হয়েছিল। এই হিসেবে নভেম্বর মাসে দুর্ঘটনা বেড়েছে ১৮.১২ শতাংশ এবং প্রাণহানি বেড়েছে ১০.৯২ শতাংশ। দুর্ঘটনায় ১৮ থেকে ৬৫ বছর বয়সী কর্মক্ষম মানুষ নিহত হয়েছেন ৩৭৬ জন, অর্থাৎ ৮০.৫১ শতাংশ।

সড়ক দুর্ঘটনা য় দিনে ২ শিশুর বেশি মৃ ত্যু

প্রকাশিত হয়েছেঃ ০২:০৭:২২ অপরাহ্ন, রবিবার, ১০ ডিসেম্বর ২০২৩
print news -
নিউজ ডেস্ক: সড়ক দুর্ঘটনা য় দিনে ২ শিশুর বেশি মৃ ত্যু হয়েছে বলে যানা গেছে।  গত নভেম্বর মাসে দেশে ৫৪১টি সড়ক দুর্ঘটনায় ৪৬৭ জন নিহত হয়েছেন। এসব দুর্ঘটনায় আরো ৬৭২ জন আহত হয়েছেন। নিহতের মধ্যে ৫৩ জন নারী ও ৬৬ শিশু রয়েছে। দেশের বিভিন্ন স্কুল-মাদরাসা-কলেজের ৬৬ জন শিক্ষার্থী নিহত হয়েছে।
সবচেয়ে বেশি ২০৭টি মোটরসাইকেল দুর্ঘটনায় ১৮১ জন নিহত হয়েছে। যা মোট নিহতের ৩৮.৭৫ শতাংশ। মোটরসাইকেল দুর্ঘটনার হার ৩৮.২৬ শতাংশ। দুর্ঘটনায় ১০৬ জন পথচারী নিহত হয়েছে।
যা মোট নিহতের ২২.৬৯ শতাংশ। যানবাহনের চালক ও সহকারী নিহত হয়েছেন ৬৮ জন, অর্থাৎ ১৪.৫৬ শতাংশ।আজ শনিবার রোড সেফটি ফাউন্ডেশনের প্রকাশিত মাসিক দুর্ঘটনা সংক্রান্ত প্রতিবেদনে এসব তথ্য জানা গেছে। বিভিন্ন সংবাদমাধ্যমে প্রচারিত খবরের তথ্যের ভিত্তিতে প্রতিবেদনটি তৈরি করা হয়েছে।
এই সময়ে ৫টি নৌ-দুর্ঘটনায় ৫ জন নিহত, ৩ জন আহত হয়েছেন। ২২টি রেলপথ দুর্ঘটনায় ১৯ জন নিহত এবং ১৬ জন আহত হয়েছে।দুর্ঘটনায় যানবাহনভিত্তিক নিহতের পরিসংখ্যানে দেখা যায়, মোটরসাইকেল চালক ও আরোহী ১৮১ জন, বাস যাত্রী ৮ জন, ট্রাক-কাভার্ড ভ্যান-পিকআপ ভ্যান-পুলিশভ্যান আরোহী ২০ জন ও তিন চাকার যানে ১০৬ জন। মোট দুর্ঘটনার মধ্যে ১৮৭টি জাতীয় মহাসড়কে, ২৩২টি আঞ্চলিক সড়কে, ৮১টি গ্রামীণ সড়কে, ৩৩টি শহরের সড়কে সংঘটিত হয়েছে।ঢাকা বিভাগে সবচেয়ে বেশি দুর্ঘটনা ও প্রাণহানি ঘটেছে।

আরো পড়ুন:২৪ বছর বয়সে মালয়ালম অভিনেত্রীর মৃ ত্যু

১৩৮টি দুর্ঘটনায় ১১৯ জন নিহত। সিলেট বিভাগে সবচেয়ে কম ২১টি দুর্ঘটনায় ১৬ জনের প্রাণহানি ঘটেছে। একক জেলা হিসেবে চট্টগ্রাম জেলায় সবচেয়ে বেশি ৩৮টি দুর্ঘটনায় ৪৯ জন নিহত হয়েছে। সবচেয়ে কম দুর্ঘটনা ঘটেছে খাগড়াছড়ি জেলায়। দুটি দুর্ঘটনা ঘটলেও কোনো প্রাণহানি ঘটেনি। রাজধানী ঢাকায় ২৬টি দুর্ঘটনায় ২০ জন নিহত এবং ৩১ জন আহত হয়েছে।

আরো পড়ুন: বিএসএফের গুলিতে নি হ ত যুবকের লা শ ফেরত পেল পরিবার

গত অক্টোবর মাসে ৪৫৮টি সড়ক দুর্ঘটনায় ৪২১ জন নিহত হয়েছিল। এই হিসেবে নভেম্বর মাসে দুর্ঘটনা বেড়েছে ১৮.১২ শতাংশ এবং প্রাণহানি বেড়েছে ১০.৯২ শতাংশ। দুর্ঘটনায় ১৮ থেকে ৬৫ বছর বয়সী কর্মক্ষম মানুষ নিহত হয়েছেন ৩৭৬ জন, অর্থাৎ ৮০.৫১ শতাংশ।