১২:২০ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ২২ এপ্রিল ২০২৪, ৮ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

বিপুল ভক্ত সমাগম, ৫৬ ভোগ নিবেদ ন, নবদ্বীপে মহাপ্রভুর অন্নপ্রাশন উৎসবে র আয়োজন

বিপুল ভক্ত সমাগম, ৫৬ ভোগ নিবেদ ন, নবদ্বীপে মহাপ্রভুর অন্নপ্রাশন উৎসবে র আয়োজন

print news -

নিউজ ডেস্ক: নবদ্বীপ মহাপ্রভু মন্দিরে মহাসমারোহে ভগবান মহাপ্রভুর অন্নপ্রাশন উৎসব পালিত হয়েছে। ধামেশ্বর মহাপ্রভু মন্দিরে অনেক ভক্তের ভিড়। ৫৬ ভোগের মহাপ্রভুর অন্নপ্রাশন উৎসবের আয়োজন করা হয় অন্ন প্রদানের মাধ্যমে।

মহাপ্রভুর অন্নপ্রাশন উৎসব: মঙ্গলবার সকালে ধামেশ্বর মহাপ্রভু মন্দিরে শ্রীমান মহাপ্রভুর শুভ অন্নপ্রাশন উৎসবের তোরজো শুরু হয়। মহাপ্রভুর মন্দিরে ৫৬ ধরনের শাকসবজি, মিষ্টি এবং অন্যান্য সামগ্রী সাজানো হয়েছে। হাজারো ভক্তের উপস্থিতিতে মঙ্গলবার দুপুর থেকে শ্রীমান মহাপ্রভুর অন্নপ্রাশন অনুষ্ঠান শুরু হয়। মহাপ্রভুর খাদ্য মূল্যবান পাত্রে পরিবেশন করা হয়। সাধারণত রূপা, পিতল, ব্রোঞ্জের পাত্রে একাধিক পদ পরিবেশন করা হয়। আনা, পরমান্না, পুষ্পান্না, মিষ্টি, তরকারি, ভাজা, পুরি, নিমকি, চাটনি সহ একাধিক আইটেম সাজানো হয়েছে। সন্ধ্যায় মহাপ্রসাদ বিতরণ করা হয়। ধামেশ্বর মহাপ্রভু মন্দির গত এক মাস ধরে দোলযাত্রা বা ভগবান চৈতন্য মহাপ্রভুর ৫৩৮ তম আবির্ভাব উদযাপন করছে। যদিও অন্নপ্রাশন উৎসব শুরুর সঠিক সময় লিপিবদ্ধ নেই। তবে শোনা যায়, মহাপ্রভুর সেবা করা শচীনন্দন গোস্বামীর সময় থেকেই এই উৎসব পালিত হয়ে আসছে। মন্দির সূত্রে জানা গেছে, দেবী বিষ্ণুপ্রিয়া দেবীর উত্তরাধিকারী ভক্তরা এই উৎসবে র আয়োজন করছেন।

এদিকে, মায়াপুরের ইসকন মন্দিরে গৌর পূর্ণিমা উৎসব শুরু হয় দোলের আগের রাতে একটি অধ্যাসী দিয়ে। ভগবান চৈতন্য মহাপ্রভুর ৫৩৮ তম আবির্ভাব দিবস উপলক্ষে সারা দেশ থেকে হাজার হাজার ভক্ত মন্দিরে আসেন। মায়াপুরে দোলনা নিষিদ্ধ। দোল দিবসে সকালে মঙ্গলারতি অনুষ্ঠিত হয়। দিনভর চলে হরিনাম সংকীর্তন, বিশেষ পূজা। বিকেলে অভিষেকের মধ্য দিয়ে শেষ হয় শ্রীচৈতন্যের আবির্ভাব উৎসব। অন্যদিকে, সোমবার দোলযাত্রা উপলক্ষে সেজেছে কালীবাড়ি লেক। দোলপূর্ণিমার শুভ দিনে বিশেষ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। কালীবাড়ি লেকের পুজো শুরু হয় মা কালীর চরণ দিয়ে। প্রতি বছর শ্রী চৈতন্য দেবের জন্মবার্ষিকীতে কালীবাড়ি লেকে একটি বিশেষ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। বছরের পর বছর ধরে এই প্রথা চলে আসছে।

 

 

জনপ্রিয় সংবাদ

মুক্তিযুদ্ধা সংগঠক আব্দুর রাজ্জাকের ইন্তেকাল।। বিশিষ্টজনের শোক প্রকাশ

বিপুল ভক্ত সমাগম, ৫৬ ভোগ নিবেদ ন, নবদ্বীপে মহাপ্রভুর অন্নপ্রাশন উৎসবে র আয়োজন

প্রকাশিত হয়েছেঃ ০৩:৪২:৫৯ অপরাহ্ন, বুধবার, ২৭ মার্চ ২০২৪
print news -

নিউজ ডেস্ক: নবদ্বীপ মহাপ্রভু মন্দিরে মহাসমারোহে ভগবান মহাপ্রভুর অন্নপ্রাশন উৎসব পালিত হয়েছে। ধামেশ্বর মহাপ্রভু মন্দিরে অনেক ভক্তের ভিড়। ৫৬ ভোগের মহাপ্রভুর অন্নপ্রাশন উৎসবের আয়োজন করা হয় অন্ন প্রদানের মাধ্যমে।

মহাপ্রভুর অন্নপ্রাশন উৎসব: মঙ্গলবার সকালে ধামেশ্বর মহাপ্রভু মন্দিরে শ্রীমান মহাপ্রভুর শুভ অন্নপ্রাশন উৎসবের তোরজো শুরু হয়। মহাপ্রভুর মন্দিরে ৫৬ ধরনের শাকসবজি, মিষ্টি এবং অন্যান্য সামগ্রী সাজানো হয়েছে। হাজারো ভক্তের উপস্থিতিতে মঙ্গলবার দুপুর থেকে শ্রীমান মহাপ্রভুর অন্নপ্রাশন অনুষ্ঠান শুরু হয়। মহাপ্রভুর খাদ্য মূল্যবান পাত্রে পরিবেশন করা হয়। সাধারণত রূপা, পিতল, ব্রোঞ্জের পাত্রে একাধিক পদ পরিবেশন করা হয়। আনা, পরমান্না, পুষ্পান্না, মিষ্টি, তরকারি, ভাজা, পুরি, নিমকি, চাটনি সহ একাধিক আইটেম সাজানো হয়েছে। সন্ধ্যায় মহাপ্রসাদ বিতরণ করা হয়। ধামেশ্বর মহাপ্রভু মন্দির গত এক মাস ধরে দোলযাত্রা বা ভগবান চৈতন্য মহাপ্রভুর ৫৩৮ তম আবির্ভাব উদযাপন করছে। যদিও অন্নপ্রাশন উৎসব শুরুর সঠিক সময় লিপিবদ্ধ নেই। তবে শোনা যায়, মহাপ্রভুর সেবা করা শচীনন্দন গোস্বামীর সময় থেকেই এই উৎসব পালিত হয়ে আসছে। মন্দির সূত্রে জানা গেছে, দেবী বিষ্ণুপ্রিয়া দেবীর উত্তরাধিকারী ভক্তরা এই উৎসবে র আয়োজন করছেন।

এদিকে, মায়াপুরের ইসকন মন্দিরে গৌর পূর্ণিমা উৎসব শুরু হয় দোলের আগের রাতে একটি অধ্যাসী দিয়ে। ভগবান চৈতন্য মহাপ্রভুর ৫৩৮ তম আবির্ভাব দিবস উপলক্ষে সারা দেশ থেকে হাজার হাজার ভক্ত মন্দিরে আসেন। মায়াপুরে দোলনা নিষিদ্ধ। দোল দিবসে সকালে মঙ্গলারতি অনুষ্ঠিত হয়। দিনভর চলে হরিনাম সংকীর্তন, বিশেষ পূজা। বিকেলে অভিষেকের মধ্য দিয়ে শেষ হয় শ্রীচৈতন্যের আবির্ভাব উৎসব। অন্যদিকে, সোমবার দোলযাত্রা উপলক্ষে সেজেছে কালীবাড়ি লেক। দোলপূর্ণিমার শুভ দিনে বিশেষ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। কালীবাড়ি লেকের পুজো শুরু হয় মা কালীর চরণ দিয়ে। প্রতি বছর শ্রী চৈতন্য দেবের জন্মবার্ষিকীতে কালীবাড়ি লেকে একটি বিশেষ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। বছরের পর বছর ধরে এই প্রথা চলে আসছে।