০৪:২২ অপরাহ্ন, সোমবার, ২২ জুলাই ২০২৪, ৭ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

দক্ষিণ আফ্রিকা কে হারিয়ে ভারতের বিশ্বকাপ জয়

print news -

দক্ষিণ আফ্রিকা কে হারিয়ে ১৩ বছর পর বিশ্বকাপের শিরোপা জিতল ভারত। এর আগে ২০১১ সালে ওয়ানডে বিশ্বকাপ জিতে মহেন্দ্র সিং ধোনির নেতৃত্বাধীন ভারতীয় ক্রিকেট দল।

তবে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের হিসেব করলে ১৭ বছর ফের ফের শিরোপা জিতল ভারত। এর আগে ২০০৭ সালে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের প্রথম আসরে চ্যাম্পিয়ন হয়েছিল মহেন্দ্র সিং ধোনির নেতৃত্বাধীন ভারত।
২০১১ সালের পর থেকেই শিরোপার খরায় ছিল ভারতীয় ক্রিকেট দল। ২০১৪ সালে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের ফাইনালে উঠেও শ্রীলংকার বিপক্ষে হেরে যায় ভারত। ২০১৭ সালে চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফির ফাইনালে পাকিস্তানের বিপক্ষে হেরে যায় ভারত। ২০২১ ও ২০২৩ সাল টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনালে নিউজিল্যান্ড ও ইংল্যান্ডের বিপক্ষে হেরে যায় ভারত। সবশেষ গত বছরের নভেম্বরে ভারতের আহমেদাবাদে ওয়ানডে বিশ্বকাপের ফাইনালে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে হেরে কান্নায় ভেঙে পড়েন বিরাট কোহলি ও রোহিত শর্মারা।

২০১১ সালের পর আইসিসিরি তিনটি চারটি ইভেন্টে ৫বার ফাইনালে উঠেও শিরোপার নিয়ে ঘরে ফিরতে পারেনি ভারত। দীর্ঘ ১৩ বছর পর আজ দক্ষিণ আফ্রিকাকে হারিয়ে শিরোপা জয়ের খরা কাটাল ভারত।

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে এতদিন দুটি করে শিরোপা জয়ের কীর্তি ছিল ওয়েস্ট ইন্ডিজ ও ইংল্যান্ডের। আজ দক্ষিণ আফ্রিকাকে হারানোর মধ্য দিয়ে উইন্ডিজ ও ইংরেজদের মতো সেই মাইলফলক স্পর্শ করল ভারত।

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে একবার করে চ্যাম্পিয়ন হয় পাকিস্তান, শ্রীলংকা ও অস্ট্রেলিয়া।

শনিবার টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের নবম আসরের ফাইনাল ম্যাচে আগে ব্যাট করে ৭ উইকেট হারিয়ে ১৭৬ রান করে ভারত। দলকে চ্যালেঞ্জিং স্কোর উপহার দিতে দুর্দান্ত ব্যাটিং করেছেন সাবেক অধিনায় বিরাট কোহলি। ফাইনালের আগে ৭ ম্যাচে ৭৫ রান করা বিরাট, ট্রফি নিশ্চিত করার ম্যাচে করেছেন ৫৯ বলে ৭৬ রান।

টার্গেট তাড়া করতে নেমে ৪ উইকেটে ১৪৭ রান করে জয়ের পথেই ছিল দক্ষিণ আফ্রিকা। শেষ দিকে জয়ের জন্য তাদের করতে হতো ৩০ বলে মাত্র ৩০ রান। হাতে ছিল গুরুত্বপূর্ণ ৬ উইকেট। কিন্তু শেষ দিকে চরম ব্যাটিং বিপর্যয়ের কারণে ২২ রানে ৪ উইকেট হারিয়ে ১৬৯/৮ রানের বেশি করতে পারেনি প্রোটিয়ারা। ৭ রানের জয়ে শিরোপার উল্লাসে মেতে ওঠে ভারত।

ট্যাগঃ

কোটা সংস্কার এর দাবিতে আন্দলনরত শিক্ষার্থীদের নিরাপত্তা নিয়ে চিন্তিত প্রধানমন্ত্রী: পলক

দক্ষিণ আফ্রিকা কে হারিয়ে ভারতের বিশ্বকাপ জয়

প্রকাশিত হয়েছেঃ ০৫:৪৩:২৭ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ৩০ জুন ২০২৪
print news -

দক্ষিণ আফ্রিকা কে হারিয়ে ১৩ বছর পর বিশ্বকাপের শিরোপা জিতল ভারত। এর আগে ২০১১ সালে ওয়ানডে বিশ্বকাপ জিতে মহেন্দ্র সিং ধোনির নেতৃত্বাধীন ভারতীয় ক্রিকেট দল।

তবে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের হিসেব করলে ১৭ বছর ফের ফের শিরোপা জিতল ভারত। এর আগে ২০০৭ সালে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের প্রথম আসরে চ্যাম্পিয়ন হয়েছিল মহেন্দ্র সিং ধোনির নেতৃত্বাধীন ভারত।
২০১১ সালের পর থেকেই শিরোপার খরায় ছিল ভারতীয় ক্রিকেট দল। ২০১৪ সালে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের ফাইনালে উঠেও শ্রীলংকার বিপক্ষে হেরে যায় ভারত। ২০১৭ সালে চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফির ফাইনালে পাকিস্তানের বিপক্ষে হেরে যায় ভারত। ২০২১ ও ২০২৩ সাল টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনালে নিউজিল্যান্ড ও ইংল্যান্ডের বিপক্ষে হেরে যায় ভারত। সবশেষ গত বছরের নভেম্বরে ভারতের আহমেদাবাদে ওয়ানডে বিশ্বকাপের ফাইনালে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে হেরে কান্নায় ভেঙে পড়েন বিরাট কোহলি ও রোহিত শর্মারা।

২০১১ সালের পর আইসিসিরি তিনটি চারটি ইভেন্টে ৫বার ফাইনালে উঠেও শিরোপার নিয়ে ঘরে ফিরতে পারেনি ভারত। দীর্ঘ ১৩ বছর পর আজ দক্ষিণ আফ্রিকাকে হারিয়ে শিরোপা জয়ের খরা কাটাল ভারত।

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে এতদিন দুটি করে শিরোপা জয়ের কীর্তি ছিল ওয়েস্ট ইন্ডিজ ও ইংল্যান্ডের। আজ দক্ষিণ আফ্রিকাকে হারানোর মধ্য দিয়ে উইন্ডিজ ও ইংরেজদের মতো সেই মাইলফলক স্পর্শ করল ভারত।

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে একবার করে চ্যাম্পিয়ন হয় পাকিস্তান, শ্রীলংকা ও অস্ট্রেলিয়া।

শনিবার টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের নবম আসরের ফাইনাল ম্যাচে আগে ব্যাট করে ৭ উইকেট হারিয়ে ১৭৬ রান করে ভারত। দলকে চ্যালেঞ্জিং স্কোর উপহার দিতে দুর্দান্ত ব্যাটিং করেছেন সাবেক অধিনায় বিরাট কোহলি। ফাইনালের আগে ৭ ম্যাচে ৭৫ রান করা বিরাট, ট্রফি নিশ্চিত করার ম্যাচে করেছেন ৫৯ বলে ৭৬ রান।

টার্গেট তাড়া করতে নেমে ৪ উইকেটে ১৪৭ রান করে জয়ের পথেই ছিল দক্ষিণ আফ্রিকা। শেষ দিকে জয়ের জন্য তাদের করতে হতো ৩০ বলে মাত্র ৩০ রান। হাতে ছিল গুরুত্বপূর্ণ ৬ উইকেট। কিন্তু শেষ দিকে চরম ব্যাটিং বিপর্যয়ের কারণে ২২ রানে ৪ উইকেট হারিয়ে ১৬৯/৮ রানের বেশি করতে পারেনি প্রোটিয়ারা। ৭ রানের জয়ে শিরোপার উল্লাসে মেতে ওঠে ভারত।