১১:০৬ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ১৯ মে ২০২৪, ৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

সিলেটে দু-পক্ষের সংঘর্ষ থামাতে গিয়ে আওয়ামী লীগ নেতার মৃ ত্যু

print news -

নিউজ ডেস্ক: সিলেটের কোম্পানীগঞ্জে দুই গ্রামের বাসিন্দাদের সংঘর্ষ থামাতে গিয়ে প্রাণ হারিয়েছেন আব্দুল্লাহ মিয়া (৩৮) নামের এক আওয়ামী লীগ নেতা।

রোববার (৩ ডিসেম্বর) সকালে উপজেলার পুর্নাছগাম গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। আব্দুল্লাহ মিয়া সুন্দাউরা গ্রামের বাসিন্দা। তিনি দক্ষিণ রণিখাই ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের ৭ নম্বর ওয়ার্ড শাখার সাধারণ সম্পাদক ছিলেন।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, শনিবার সিএনজিচালিত অটোরিকশার ভাড়া নিয়ে পুর্নাছগাম ও সুন্দাউরা গ্রামের দুই ব্যক্তির মধ্যে কথা কাটাকাটি হয়। এর জেরে রোববার সকালে দুই গ্রামবাসীর মধ্যে সংঘর্ষ বাঁধে। মারামারি থামাতে ঘটনাস্থলে যান আওয়ামী লীগ নেতা আব্দুল্লাহ মিয়া। এ সময় আঘাত পেয়ে গুরুতর আহত হন। স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার সিলেট নগরীর একটি বেসরকারি হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

রাতে কোম্পানীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত (ওসি) হিল্লোল রায় জাগো নিউজকে বলেন, পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। সংঘর্ষে একজন মারা গেছেন। তবে এ ঘটনায় এখনো কেউ মামলা করেনি। অভিযোগ পেলে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

দক্ষিণ রণিখাই ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের প্রচার সম্পাদক এখলাস আলী জাগো নিউজকে বলেন, অটোরিকশার ভাড়া নিয়ে কথা কাটাকাটির জের ধরে দুপক্ষের উত্তেজনা দেখা দেয়। এক পর্যায়ে মারামারি শুরু হলে আহত হন আব্দুল্লাহ মিয়া। পরে তাকে হাসপাতালে নিলে চিকিৎসকরা মৃত ঘোষণা করেন।

তিনি আরও বলেন, নিহতের মরদেহ এখনো সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে আছে। সোমবার পরিবারের কাছে হস্তান্তরের কথা। এরপর দাফন সম্পন্ন হবে।

 

সুত্র: জাগো নিউজ

জনপ্রিয় সংবাদ

উপজেলা পরিষদ নির্বাচন : ২০৪ নেতাকে বহিষ্কার করল বি.এন.পি

সিলেটে দু-পক্ষের সংঘর্ষ থামাতে গিয়ে আওয়ামী লীগ নেতার মৃ ত্যু

প্রকাশিত হয়েছেঃ ০৪:৫২:৩৮ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ৪ ডিসেম্বর ২০২৩
print news -

নিউজ ডেস্ক: সিলেটের কোম্পানীগঞ্জে দুই গ্রামের বাসিন্দাদের সংঘর্ষ থামাতে গিয়ে প্রাণ হারিয়েছেন আব্দুল্লাহ মিয়া (৩৮) নামের এক আওয়ামী লীগ নেতা।

রোববার (৩ ডিসেম্বর) সকালে উপজেলার পুর্নাছগাম গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। আব্দুল্লাহ মিয়া সুন্দাউরা গ্রামের বাসিন্দা। তিনি দক্ষিণ রণিখাই ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের ৭ নম্বর ওয়ার্ড শাখার সাধারণ সম্পাদক ছিলেন।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, শনিবার সিএনজিচালিত অটোরিকশার ভাড়া নিয়ে পুর্নাছগাম ও সুন্দাউরা গ্রামের দুই ব্যক্তির মধ্যে কথা কাটাকাটি হয়। এর জেরে রোববার সকালে দুই গ্রামবাসীর মধ্যে সংঘর্ষ বাঁধে। মারামারি থামাতে ঘটনাস্থলে যান আওয়ামী লীগ নেতা আব্দুল্লাহ মিয়া। এ সময় আঘাত পেয়ে গুরুতর আহত হন। স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার সিলেট নগরীর একটি বেসরকারি হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

রাতে কোম্পানীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত (ওসি) হিল্লোল রায় জাগো নিউজকে বলেন, পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। সংঘর্ষে একজন মারা গেছেন। তবে এ ঘটনায় এখনো কেউ মামলা করেনি। অভিযোগ পেলে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

দক্ষিণ রণিখাই ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের প্রচার সম্পাদক এখলাস আলী জাগো নিউজকে বলেন, অটোরিকশার ভাড়া নিয়ে কথা কাটাকাটির জের ধরে দুপক্ষের উত্তেজনা দেখা দেয়। এক পর্যায়ে মারামারি শুরু হলে আহত হন আব্দুল্লাহ মিয়া। পরে তাকে হাসপাতালে নিলে চিকিৎসকরা মৃত ঘোষণা করেন।

তিনি আরও বলেন, নিহতের মরদেহ এখনো সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে আছে। সোমবার পরিবারের কাছে হস্তান্তরের কথা। এরপর দাফন সম্পন্ন হবে।

 

সুত্র: জাগো নিউজ