০৫:২৭ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ২৪ মে ২০২৪, ১০ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

পাকিস্তানে ৮ম তত্ত্বাবধায়ক সরকার প্রধান হিসেবে শপথ কাকার

print news -

পাকিস্তানে অন্তর্বর্তীকালীন সরকারের প্রধানমন্ত্রী হিসেবে শপথ নিয়েছেন আনোয়ারুল হক কাকার। সোমবার দেশটির ৮ম তত্ত্বাবধায়ক সরকারপ্রধান হিসেবে শপথ নেন তিনি।

ডনের খবরে বলা হয়েছে, পাকিস্তানের স্বাধীনতা দিবসে ইসলামাবাদের আইওয়ান-ই-সদরে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে কাকারকে শপথবাক্য পাঠ করান পাকিস্তানি প্রেসিডেন্ট আরিফ আলভি।

অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন সেনাপ্রধান অসীম মুনির, জয়েন্ট চিফস অব স্টাফ কমিটির চেয়ারম্যান জেনারেল নাদিম রাজা এবং সদ্য সাবেক প্রধানমন্ত্রী শাহবাজ শরীফ।

অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন জাতীয় পরিষদের সাবেক স্পিকার রাজা পারভেজ আশরাফ, সিনেট চেয়ারম্যান সাদিক সানজরানি, সিন্ধু প্রদেশের গভর্নর কামরান টেসরি, পাঞ্জাবের গভর্নর বালিঘুর রেহমান, খাইবার পাখতুনখোয়ার গভর্নর হাজী গোলাম আলী, পিটিআই সিনেটর শাহজাদ ওয়াসিম এবং পিপিপি নেতা ফয়সাল করিম কুন্ডি।

শপথ নেওয়ার পর কাকার সশস্ত্র বাহিনীর কর্মকর্তাদের সঙ্গেও দেখা করেন এবং তাদের সঙ্গে হাত মেলান। অন্তর্বর্তীকালীন প্রধানমন্ত্রী হিসেবে এখন তার প্রথম কাজ হবে দেশ পরিচালনার জন্য একটি মন্ত্রিসভা নির্বাচন করা।

আনোয়ার উল হক কাকার বেলুচিস্তানে শিক্ষকতা দিয়ে চাকরিজীবন শুরু করে। এরপর ২০০৮ সালে পাকিস্তান মুসলিম লীগ (পিএমএলকিউ) দলের মনোনীত প্রার্থী হিসাবে জাতীয় পরিষদ নির্বাচনে অংশ নেন। তবে সে নির্বাচনে পাকিস্তান পিপলস পার্টি (পিপিপি) প্রার্থীর নাসির আলী সাহের কাছে তিনি পরাজিত হন। পরবর্তীতে পিএমএলএন দলের তৎকালীন মুখ্যমন্ত্রী সানাউল্লাহ জেহরির মুখপাত্র হিসাবে তিন বছর কাজ করেন।

২০১৮ সালে জেহরিকে পদত্যাগে বাধ্য করে ৬ বছরের জন্য সিনেটর নির্বাচিত হন। আনোয়ার উল হক কাকার পাকিস্তানে বেলুচিস্তানের বেলুচি আওয়ামী পার্টির (বিএপি) সদস্য ছিলেন।

এছাড়াও তিনি মানবসম্পদ উন্নয়ন সংক্রান্ত সিনেটের স্থায়ী কমিটির চেয়ারপারসন। ব্যবসা উপদেষ্টা কমিটির সদস্য, অর্থ ও রাজস্ব, পররাষ্ট্র এবং বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির সদস্য হিসাবেও কাজ করেছেন তিনি।

জনপ্রিয় সংবাদ

আনোয়ারুল আজীমকে খুন করতে ৫ কোটি টাকার চুক্তি

পাকিস্তানে ৮ম তত্ত্বাবধায়ক সরকার প্রধান হিসেবে শপথ কাকার

প্রকাশিত হয়েছেঃ ১১:২৬:৪৪ অপরাহ্ন, সোমবার, ১৪ অগাস্ট ২০২৩
print news -

পাকিস্তানে অন্তর্বর্তীকালীন সরকারের প্রধানমন্ত্রী হিসেবে শপথ নিয়েছেন আনোয়ারুল হক কাকার। সোমবার দেশটির ৮ম তত্ত্বাবধায়ক সরকারপ্রধান হিসেবে শপথ নেন তিনি।

ডনের খবরে বলা হয়েছে, পাকিস্তানের স্বাধীনতা দিবসে ইসলামাবাদের আইওয়ান-ই-সদরে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে কাকারকে শপথবাক্য পাঠ করান পাকিস্তানি প্রেসিডেন্ট আরিফ আলভি।

অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন সেনাপ্রধান অসীম মুনির, জয়েন্ট চিফস অব স্টাফ কমিটির চেয়ারম্যান জেনারেল নাদিম রাজা এবং সদ্য সাবেক প্রধানমন্ত্রী শাহবাজ শরীফ।

অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন জাতীয় পরিষদের সাবেক স্পিকার রাজা পারভেজ আশরাফ, সিনেট চেয়ারম্যান সাদিক সানজরানি, সিন্ধু প্রদেশের গভর্নর কামরান টেসরি, পাঞ্জাবের গভর্নর বালিঘুর রেহমান, খাইবার পাখতুনখোয়ার গভর্নর হাজী গোলাম আলী, পিটিআই সিনেটর শাহজাদ ওয়াসিম এবং পিপিপি নেতা ফয়সাল করিম কুন্ডি।

শপথ নেওয়ার পর কাকার সশস্ত্র বাহিনীর কর্মকর্তাদের সঙ্গেও দেখা করেন এবং তাদের সঙ্গে হাত মেলান। অন্তর্বর্তীকালীন প্রধানমন্ত্রী হিসেবে এখন তার প্রথম কাজ হবে দেশ পরিচালনার জন্য একটি মন্ত্রিসভা নির্বাচন করা।

আনোয়ার উল হক কাকার বেলুচিস্তানে শিক্ষকতা দিয়ে চাকরিজীবন শুরু করে। এরপর ২০০৮ সালে পাকিস্তান মুসলিম লীগ (পিএমএলকিউ) দলের মনোনীত প্রার্থী হিসাবে জাতীয় পরিষদ নির্বাচনে অংশ নেন। তবে সে নির্বাচনে পাকিস্তান পিপলস পার্টি (পিপিপি) প্রার্থীর নাসির আলী সাহের কাছে তিনি পরাজিত হন। পরবর্তীতে পিএমএলএন দলের তৎকালীন মুখ্যমন্ত্রী সানাউল্লাহ জেহরির মুখপাত্র হিসাবে তিন বছর কাজ করেন।

২০১৮ সালে জেহরিকে পদত্যাগে বাধ্য করে ৬ বছরের জন্য সিনেটর নির্বাচিত হন। আনোয়ার উল হক কাকার পাকিস্তানে বেলুচিস্তানের বেলুচি আওয়ামী পার্টির (বিএপি) সদস্য ছিলেন।

এছাড়াও তিনি মানবসম্পদ উন্নয়ন সংক্রান্ত সিনেটের স্থায়ী কমিটির চেয়ারপারসন। ব্যবসা উপদেষ্টা কমিটির সদস্য, অর্থ ও রাজস্ব, পররাষ্ট্র এবং বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির সদস্য হিসাবেও কাজ করেছেন তিনি।