১২:৫২ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১১ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

ছা দ থেকে লাফিয়ে পড়ে কলেজ ছাত্রের মৃ ত্যু

print news -

নিউজ ডেস্ক:  চাঁদপুর প্রতিনিধি চাঁদপুর শহরে একটি ৬ তলা ভবনের ছাদ থেকে লাফিয়ে পড়ে নিলয় সাহা (১৯) নামে কলেজছাত্রের মৃত্যু হয়েছে। মঙ্গলবার (২৩ জানুয়ারি) সন্ধ্যার কিছুটা আগে শহরের চৌধুরীপাড়ার পাশের সড়কে পরেশ সাহার মালিকানাধীন ভবনের উত্তর পাশের ৬ তলা থেকে পড়ে ওই ছাত্রের মৃত্যুর হয়।

নিলয় সাহা ওই ভবনের ভাড়াটিয়া বাসিন্দা স্বরূপ সাহার ছেলে। নিলয় শহরের পুরান বাজার ডিগ্রি কলেজে উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রে এইচএসসি প্রথম বর্ষের ছাত্র।

নিলয়ের খালাতো ভাই অভিজিৎ জানান, নিলয় গত কয়েক বছর ধরে মানসিক রোগে আক্রান্ত। তাকে ভারত এবং দেশে কয়েক স্থানে চিকিৎসা করা হয়েছে। তারা এক ভাই এক বোন। তার বোনেরও একই ধরনের মানসিক সমস্যা আছে।

বাবা স্বরূপ সাহা জানান, তার ছেলে নিলয় মানসিক রোগে আক্রান্ত। মঙ্গলবার বিকেলে বাসার অন্যদের চোখ ফাঁকি দিয়ে ভবনের ছাদ থেকে লাফিয়ে পড়ে। সেখানে তার মাথায় আঘাতপ্রাপ্ত হয়। সংবাদ পেয়ে তিনি নিজে এবং আশপাশের লোকজন ঘটনাস্থল থেকে উদ্ধার করে চাঁদপুর ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে যায়।

এ সময় হাসপাতালের কর্তব্যরত চিকিৎসক সৈয়দ আহমেদ কাজল নিলয়কে মৃত ঘোষণা করেন। এদিকে ঘটনার খবর পেয়ে চাঁদপুর সদর মডেল থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) জাকির ভূঁইয়া হাসপাতালে এসে মরদেহের সুরতহাল তৈরি করেন। চাঁদপুর সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শেখ মুহসীন আলম জানান, পরিবারের তথ্যমতে মানসিক ভারসাম্যহীন রোগী ছিল নিলয়। এ ছাড়া ময়না তদন্তের পর পরিবারের কাছে মরদেহ হস্তান্তর করা হবে। ঘটনাস্থল পরিদর্শন করা হয়েছে। এ ঘটনায় রাত ১১টা পর্যন্ত নিহতের পরিবারের পক্ষ থেকে কোনো অভিযোগ আসেনি। তবে পরবর্তী আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।
সুত্র: কালের কন্ঠ 
ট্যাগঃ

ছা দ থেকে লাফিয়ে পড়ে কলেজ ছাত্রের মৃ ত্যু

প্রকাশিত হয়েছেঃ ০৪:১৪:৫৩ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২৫ জানুয়ারী ২০২৪
print news -

নিউজ ডেস্ক:  চাঁদপুর প্রতিনিধি চাঁদপুর শহরে একটি ৬ তলা ভবনের ছাদ থেকে লাফিয়ে পড়ে নিলয় সাহা (১৯) নামে কলেজছাত্রের মৃত্যু হয়েছে। মঙ্গলবার (২৩ জানুয়ারি) সন্ধ্যার কিছুটা আগে শহরের চৌধুরীপাড়ার পাশের সড়কে পরেশ সাহার মালিকানাধীন ভবনের উত্তর পাশের ৬ তলা থেকে পড়ে ওই ছাত্রের মৃত্যুর হয়।

নিলয় সাহা ওই ভবনের ভাড়াটিয়া বাসিন্দা স্বরূপ সাহার ছেলে। নিলয় শহরের পুরান বাজার ডিগ্রি কলেজে উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রে এইচএসসি প্রথম বর্ষের ছাত্র।

নিলয়ের খালাতো ভাই অভিজিৎ জানান, নিলয় গত কয়েক বছর ধরে মানসিক রোগে আক্রান্ত। তাকে ভারত এবং দেশে কয়েক স্থানে চিকিৎসা করা হয়েছে। তারা এক ভাই এক বোন। তার বোনেরও একই ধরনের মানসিক সমস্যা আছে।

বাবা স্বরূপ সাহা জানান, তার ছেলে নিলয় মানসিক রোগে আক্রান্ত। মঙ্গলবার বিকেলে বাসার অন্যদের চোখ ফাঁকি দিয়ে ভবনের ছাদ থেকে লাফিয়ে পড়ে। সেখানে তার মাথায় আঘাতপ্রাপ্ত হয়। সংবাদ পেয়ে তিনি নিজে এবং আশপাশের লোকজন ঘটনাস্থল থেকে উদ্ধার করে চাঁদপুর ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে যায়।

এ সময় হাসপাতালের কর্তব্যরত চিকিৎসক সৈয়দ আহমেদ কাজল নিলয়কে মৃত ঘোষণা করেন। এদিকে ঘটনার খবর পেয়ে চাঁদপুর সদর মডেল থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) জাকির ভূঁইয়া হাসপাতালে এসে মরদেহের সুরতহাল তৈরি করেন। চাঁদপুর সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শেখ মুহসীন আলম জানান, পরিবারের তথ্যমতে মানসিক ভারসাম্যহীন রোগী ছিল নিলয়। এ ছাড়া ময়না তদন্তের পর পরিবারের কাছে মরদেহ হস্তান্তর করা হবে। ঘটনাস্থল পরিদর্শন করা হয়েছে। এ ঘটনায় রাত ১১টা পর্যন্ত নিহতের পরিবারের পক্ষ থেকে কোনো অভিযোগ আসেনি। তবে পরবর্তী আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।
সুত্র: কালের কন্ঠ